এই গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো হবে

গোলাপ জল দিয়ে ফর্সা হওয়ার উপায়এই গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো হবে আপনি কি তা জানতে চান? তাহলে সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি মনোযোগ দিয়ে পড়ুন। কেননা আজকের এই আর্টিকেলের মধ্যে আমরা এই গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো হবে তা নিয়ে বিস্তারিত আলোচনা করেছি। সম্পূর্ণ আলোচনাটি মনোযোগ দিয়ে পড়লে আপনি এই বিষয়ে স্বচ্ছ ধারণা পাবেন।
গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো
গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো হবে এই বিষয়ে জানার জন্য আপনারা অনেকেই গুগলে অনুসন্ধান করেন। তাদের জন্য আজকের এই আর্টিকেলটি অনেক উপকারে আসবে। তাই আর দেরি না করে সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি মনোযোগ দিয়ে সম্পূর্ণ পড়ে ফেলুন।

পেজ সূচিপত্রঃ

গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো

এই গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো হবে তা জানার জন্য এখনকার বাবা মায়েরা অনেকটাই উদগ্রিব। কেননা গরম চলে এসেছে। আর এই গরমের জন্য শিশু বাচ্চাদের ত্বকের ওপরে যেনো কোন প্রভাব না পরে এই জন্য সকল বাবা মায়েরাই চিন্তা করেন। আর তার জন্য একটি বাচ্চার ক্ষেত্রে কোন ক্রিমটি ভালো হবে তা না জেনেই শিশুর বাবা-মা না বুঝে শুনেই বিভিন্ন কম্পানির বিভিন্ন ধরণের ক্রিম ব্যাবহার করেন।

তবে আপনি আপনার বাচ্চার ত্বকের জন্য কোন ক্রিমটি ভালো হবে সেটি না জেনেই ব্যাবহার করেন তাহলে সেটি আপনার বাচ্চার ত্বকের জন্য অনেকটাই ঝুকির কারণ হয়ে দাড়াতে পারে। কারণ শিশুর ত্বক অনেকটাই নরম এবং সফট হয়। তাই বাচ্চার ত্বক যেনো কোন ক্রিম ব্যাবহার করার ফলে ক্ষতিগ্রস্থ না হয় সেদিকে খেয়াল রেখে গরমের জন্য ক্রিম ব্যাবহার করতে হবে। তাই চলুন এখন আমরা জেনে নেই এই গরমে আপনার বচ্চার কোন ক্রিম ব্যাবহার ভালো হবে।

সানস্ক্রিন ক্রিমঃ এই গরমে বাচ্চাদের জন্য সানস্ক্রিন ক্রিমটি অনেকটাই ভালো হবে। কারণ এই গ্রীষ্মের সূর্যের অতিরিক্ত তির্যক UV ক্ষতিকারক রশ্মির থেকে রক্ষা করতে এই ক্রিমটি অনেক ভালো কাজ করে। এই ক্রিমটি ৩০ অথবা তার বেশি SPF (সান প্রোটেকশন ফ্যাক্টর) সহ একটি ব্রড-স্পেকট্রাম ক্রিম। একটি শিশু বাচ্চার জন্য এই ক্রিমটি বিশেষভাবে তৈরি।

এছাড়াও এই ক্রিমের আরো একটি দিক হলো এটি ব্যাবহারের ফলে বাচ্চাদের ত্বক অনেকটাই মৃদু হয়। এবং তার পাশাপাশি জ্বালাপোড়াও কম হয়ে থাকে। এই ক্রিমটি একটি বাচ্চারক্ষেত্রে অনেকটাই ভালোভাবে প্রয়োগ করতে হবে। যদি দেখতে পান বাচ্চা অতিরিক্ত পরিমাণে ঘামছে তাহলে তাদের শরীরে প্রতি দুই ঘন্টা পরপর পুনরায় প্রয়োগ করুন।

শিয়া বাটার লোশনঃ বাচ্চাদের ত্বকের সুরক্ষার জন্য এবং ত্বকের ময়েশ্চারাইজার এর জন্য অনেক বেশি কার্যকরী একটি ক্রিম। এই ক্রিমটিতে সকল ধরনের প্রাকৃতিক উপাদান রয়েছে। এই ক্রিম তৈরির ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়েছে কিছু প্রাকৃতিক উপাদান। যেগুলো শিশুর ত্বকের ক্ষেত্রে খুবই পুষ্টিকর। সেই সকল উপাদান গুলো হল
  • সয়াবিন তেল
  • সূর্যমুখী বীজের তেল
  • গ্লিসারিন
  • ইত্যাদি
ময়শ্চারাইজিং লোশনঃ গরমের সময়টাতে একটি শিশু বাচ্চার জন্য তাদের ত্বক হাইড্রেটেড রাখা অনেক গুরুত্বপূর্ণ। এই ক্রিমটি ব্যাবহারের ফলে একটি শিশু বাচ্চার ত্বককে ২৪ ঘন্টা পর্যন্ত আর্দ্র রাখবে। একটি বাচ্চার জন্য এই ক্রিমটি অনেক উপযুক্ত। এই ক্রিমে রয়েছে দুধের প্রটিন উপাদান এবং তার পাশাপাশি রয়েছে অ্যালোভেরা। যার কারণ এই ক্রিমটি ব্যাবহারের ফলে বাচ্চাদের ত্বক থাকবে নরম এবং কোমল।

হিমালয় হারবাল বেবি লোশনঃ বর্তমান সময়ে বাচ্চাদের জন্য সকল মায়েদের কাছে এই ক্রিমটি অনেক জনপ্রিয় একটি ক্রিম। আর এই ক্রিম জনপ্রিয় হওয়ার সবথেকে বড় যে কারণটি রয়েছে সেটি হল এই ক্রিমটি একটি বাচ্চার জন্য খুব বেশি উপকারী। কারণ এই ক্রিমে রয়েছে সকল ধরনের ভেষজ শক্তি গুণাগুণ। এই গেমটি তৈরি করা হয়েছে মূলত বাদামের তেল এবং জলপাইয়ের তেল ব্যবহার করে। যেই উপাদানটি শিশুদের ক্ষেত্রে অনেক উপকারী এবং শিশুদের ত্বককে অনেক সতেজ করে।

উপরের উল্লেখিত এই সকল ক্রিমগুলো গরমের সময় বাচ্চাদের ক্ষেত্রে অনেক ভালো এবং উপকারী ক্রিম। এই সকল ক্রিমগুলো বর্তমান সময়ে অনেক জনপ্রিয়তার শির্ষে রয়েছে। এর প্রধান কারণ যেটি উল্লেখ করা হয় সেটি হল প্রাকৃতিক উপাদান দিয়ে তৈরি এবং শিশুদের ত্বকের ক্ষেত্রে কোন প্রকার বিরূপ প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি করে না। বাচ্চাদের ত্বককে করে তোলে অনেক সুন্দর এবং নমনীয়।

বাচ্চাদের ফর্সা হওয়ার ক্রিম

গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো সেই ক্রিমের নাম জানার পরে ক্রিম ব্যবহার করার ক্ষেত্রে অনেকের মনে আবার এমন ধরনের প্রশ্নটি উদয় হয় বাচ্চাদের ফর্সা হওয়ার ক্রিম এর নাম কি? আপনি যদি আপনার শিশু বাচ্চার ত্বক উজ্জ্বল এবং ফর্সা করতে চান তাহলে অবশ্যই নিচের দেওয়া ক্রিম গুলো আপনি ব্যবহার করতে পারেন। চলুন তাহলে এই বিষয়ে এখন বিস্তারিত জেনে নেই।
বাচ্চাদের ফর্সা হওয়ার ক্রিম
বর্তমান সময়ে বাজারে বাচ্চাদের ফর্সা হওয়ার জন্য বিভিন্ন ধরনের ক্রিম পাওয়া যায়। তবে আপনি যদি না জেনে যেকোনো ধরনের ক্রিম ক্রয় করে নিয়ে এসে বাচ্চার শরীরে ব্যবহার করেন তাহলে হতে পারে সেটি হিতের বিপরীত। কারণ ছোট বাচ্চাদের ত্বক অনেক নমনীয় হয়। তাই যেকোনো জিনিস যেকোনো ধরনের ক্রিম মাখা উচিত নয়। বাচ্চাদের ক্ষেত্রে যখন ক্রিম ব্যবহার করবেন তখন অবশ্যই এর গুণগত মান দেখে শুনে তারপরে ব্যবহার করতে হবে।

বাচ্চাদের ক্রিম ব্যবহারের ক্ষেত্রে সব থেকে ভালো হয় যদি আপনি একজন ডাক্তারের পরামর্শ নেন। তারপর তিনি যেই ক্রিমটি আপনার বাচ্চাকে ব্যবহার করতে বলবে সেটিই ব্যবহার করা উচিত। তবে এই পাঠে আমরা কিছু বাচ্চাদের ফর্সা হওয়ার ক্রিম গুলোর নাম উল্লেখ করো। আপনি যখন একজন ডাক্তারের শরণাপন্ন হবেন তখন তিনি এই সকল ক্রিমের ব্যবহারের কথা উল্লেখ করবেন। বাচ্চাদের ফর্সা হওয়ার ক্রিম গুলো হলোঃ
  • কোডোমো ফেইস ক্রিম
  • ইভেনো বডি লোশন
  • নেভিয়া ক্রিম
  • ডাব ক্রিম
  • ফেইস ক্রিম
  • প্যারাসুট জাস্ট ফর বেবি
  • জনসন বেবি লোশন
  • শিয়া বাটার লোশন

বাচ্চাদের জন্য কোন লোশন ভালো হবে

গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো হবে এই বিষয়ে আমরা ইতিপূর্বে জানতে পেরেছি। এখন এই পর্বের মধ্যে আমরা জানতে পারবো বাচ্চাদের জন্য কোন লোশন ভালো। আশা করছি আপনি আপনার বাচ্চার জন্য কেমন ধরনের লোশন ব্যবহার করবেন এবং কোন সকল উপাদান দিয়ে তৈরি করার লোশন ব্যবহার করবেন সেই সকল বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনা এই পাঠের মাধ্যমে জানতে পারবেন। তাহলে চলুন আর বেশি দেরি না করে মূল আলোচনার প্রবেশ করা যাক।

শিশু বাচ্চাদের ত্বকের যত্ন শুধু যে শীতকালেই নিতে হবে এমনটি নয়। এদের ত্বকের যত্ন গ্রীষ্মকালেও নিতে হবে সমানভাবে। কারণ মানুষের ত্বকের লিপিড নামক স্তরটি ত্বকের ভেতরের আদ্রতা ধরে রাখার জন্য অনেক বেশি সাহায্য করে। তবে শিশু বাচ্চাদের ক্ষেত্রে এই বিষয়ে দিকটিকে অনেক ভালো হবে নিতে হবে। তার জন্য অবশ্যই আপনার বাচ্চার ত্বকে লোশন মাখা যেতে পারে।

আমরা সকলেই জানি যে শীতের সময়টাতে আবহাওয়া অনেকটাই শুষ্ক থাকে। আর এজন্য শিশু বাচ্চাদের ত্বকের লিপিড স্তরের ক্ষমতা কমতে শুরু করেন। আপনি যদি আপনার এই শিশুবাচ্চার কে লোশন ব্যবহার করেন তাহলে এটি আপনার বাচ্চার অতিরিক্ত ময়েশ্চারাইজারের যোগান দিবে। এর ফলে ত্বকের সহজে হারিয়ে যাবে না। তার প্রতিশ্রুতিতে বাচ্চার ত্বক থাকবে শরীর এবং কোমল।

শিশুদের ত্বকের প্রয়োজন অনুযায়ী সব সময় লোশন ব্যবহার করা যেতে পারে। অনেকের মধ্যে এমন একটি ভুল ধারণা রয়েছে সেটি হল যখন শিশুদের শুষ্ক থাকবে সেই সময়টাতেই লোশন ব্যবহার করতে হবে। তবে এই ধারণাটি মোটেও ঠিক নয়। তবে একটি বিষয় অবশ্যই আপনাদেরকে মনে রাখতে হবে যদি ত্বক আর্দ্র থাকে তবে সেক্ষেত্রেই লোশন ব্যবহার করলে অনেক ভালো ফলাফল পাওয়া যায়।

তবে আপনি যখন শীতকালে আপনার শিশু বাচ্চাকে গোসল করাবেন তখন অবশ্যই একদিন পরপর গোসল করাবেন। তাহলে সেই বাচ্চার ত্বক অনেক ভালো থাকবে। তবে বাচ্চাকে গোসল করানোর সময় গরম পানি ব্যবহার করা নিতান্তই ভুল। এক্ষেত্রে অবশ্যই আপনাকে গরম পানি ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকতে হবে। গোসল করার পরের অবস্থাতেই বাচ্চার শরীরের লোশন লাগিয়ে দিতে হবে।

বাচ্চাদের জন্য কোন অলিভ অয়েল ভালো হবে

গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো হবে এটা জানার পরে আপনাদের মধ্যে অনেকের জানার ইচ্ছা থাকে বাচ্চাদের জন্য কোন অলিভ অয়েল ভালো হবে। আপনি যদি এই বিষয়টিতে ভালোভাবে না জেনে থাকেন তাহলে অবশ্যই আপনার এই বিষয়টিকে জেনে নেওয়া উচিত। চলুন তাহলে এই বিষয়ে এখন আমরা বিস্তারিত জেনে নেই।
বাচ্চাদের জন্য কোন অলিভ অয়েল ভালো হবে
অলিভ অয়েল যেই শব্দটির সাথে আমরা প্রায় সকলেই পরিচিত। আর এই অলিভ অয়েল মানেই হল তেল। বলা হয় এক্সট্রা ভার্জিন অলিভ অয়েল সবচেয়ে ভাল অলিভ বা জলপাই তেল। এখন বাজারে যে সকল অলিভ অয়েল এর তেল গুলো পাওয়া যায় তার ভিতর বেশিরভাগ তেল গুলো ভেজাল। তবে আপনি যখন বাজার থেকে অলিভ অয়েল কিনবেন তখন অবশ্যই আপনাকে দেখে শুনে ক্রয় করতে হবে।

এই অলিভ অয়েল তৈরি করা হয় মূলত কাঁচা জলপাই থেকে। আর কাঁচা জলপাই থেকে এই তেল তৈরি করা হয় বলেই এই তেলের নাম দেওয়া হয়েছে অলিভ অয়েল তেল। এই তেলটি মূলত অনেক অনেক যুগ আগের মানুষজন ব্যবহার করত। তবে বর্তমান সময়ে গবেষকরা জানিয়েছেন এই অলিভ অয়েল তেলটি শিশু বাচ্চাদের ক্ষেত্রেও অনেক বেশি উপকারী। কারণে এই তেলের মধ্যে রয়েছে বাচ্চাদের ক্ষেত্রে অনেক ধরনের উপকারী উপাদান।

সেই সাথে রয়েছে বিভিন্ন ধরনের পুষ্টিগুণ। যেটি আপনার শিশু বাচ্চার স্বাস্থ্যকে সুন্দর রাখবে এবং ত্বককে রাখবে মসৃণ। এই তেলটি মূলত বাচ্চাদের গোসল করানোর পরে সম্পূর্ণ শরীরে মাখতে হবে। বাজারে এখন বিভিন্ন ধরনের বিভিন্ন ব্র্যান্ডের অলিভ অয়েল পাওয়া যায়। তবে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে ভেজাল পাওয়ার জন্য আপনাকে অবশ্যই নিশ্চিত হতে হবে ভালো মানের গুণগত পুষ্টিসম্পন্ন এবং ভালো ব্র্যান্ডের অলিভ অয়েল তেল কিনতে হবে।

আপনি যখন এই তেলটি কিনবেন তখন অবশ্যই সেই দোকানিকে বলবেন আপনি এই তেল দিয়ে একটি শিশু বাচ্চার গায়ে ব্যবহার করার জন্য কিনছেন। তাহলে সেই দোকানি বুঝে শুনে আপনাকে আসল পণ্যটি দেওয়ার চেষ্টা করবেন। আমাদের দেশের সকল মুরুব্বীরা বলেন যে তারা যখন ছোটছিলো সেই সময়ে তারা বাচ্চাদের গায়ে খাঁটি সরিষার তেল মাখিয়েছে। কিন্তু এখন সকলে ব্যবহার করে কেন।

আসলে বর্তমান সময়ে পূর্বের দিনের থেকে এখনকার দিনের আবহাওয়া অনেকটাই পরিবর্তন হয়েছে। তাই পূর্বের সময় মানুষজন যেটা হাতের কাছে পেয়েছে সেটি ব্যবহার করেছে। কিন্তু বর্তমান সময়ে সেটি ব্যবহার করা মোটেও উচিত হবে না। আপনাকে অবশ্যই আবহাওয়া এবং যুগের সাথে তাল মিলিয়ে চলতে হবে। যদি আপনি একটি শিশু বাচ্চার ক্ষেত্রে প্রতিদিন নিয়মিত অলিভ অয়েল তেল মালিশ করেন তাহলে তার শরীরের মাংসপেশি অনেক শক্তিশালী হবে।

পূর্বের যুগে বাচ্চাদের ক্ষেত্রে সম্পন্ন শরীরে সরিষার তেল ব্যবহার করা হতো। কিন্তু এখন বিভিন্ন জায়গায় দেখা যায় অনেকেই নারকেলের তেল ব্যবহার করে। আর এটি দিয়ে সম্পূর্ণ শরীর মালিশ করে। তবে আপনি যদি আপনার শিশু বাচ্চাকে নিয়মিত অলিভ অয়েল ব্যবহার করেন তাহলে কিছু উপকার পাবেন। সেই সকল উপকার গুলো নিম্নে তুলে ধরা হলো।
  • ত্বক সুন্দর আকর্ষণীয় এবং ভালো রাখার ক্ষেত্রে সহায়তা করবে
  • শরীরের রক্ত চলাচল ভালোভাবে হবে
  • শরীরের হার শক্তিশালী হবে
  • নিয়মিত পর্যাপ্ত পরিমাণে ঘুম হবে
  • বাচ্চার কোষ্ঠকাঠিন্য সমস্যা দূর হয়ে যাবে

জনসন বেবি ক্রিম এর উপকারিতা

গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো জানার পরে আমাদের সকলকে অবশ্যই জনসন বেবি ক্রিম এর উপকারিতা সম্পর্কে জানতে হবে। কারণ এই ক্রিমটি আমরা সকলেই শিশু বাচ্চার ক্ষেত্রে ব্যাবহার করে থাকি। তার কারণ হলো এতে বিভিন্ন ধরণের উপকারি উপাদান বিদ্যমান রয়েছে। তবে কোন কোন উপকারি উপাদান বা উপকারিতা গুলো রয়েছে সেই বিষয়ে আমরা অনেকেই জানি না। তাই চলুন এই পাঠের মাধ্যমে এই বিষয়ে বিস্তারিত জেনে নেওয়া যাক।

জনসন বেবি ক্রিমটি সকলের কাছে জনপ্রিয় একটি ক্রিম। যে ক্রিমটি শিশুদের ত্বকের যত্নের ক্ষেত্রে ব্যবহার করা হয়। এই ক্রিমটি তৈরি ক্ষেত্রে বিভিন্ন উপাদান ব্যবহার করা হয়েছে। সেই সকল উপাদান গুলোর মধ্যে রয়েছে শোয়া বাটার, এলোভেরা এবং ভিটামিন ই জাতীয় উপাদান। যেটি শিশুদের ত্বককে নরম, সুরক্ষিত এবং হাইড্রেটেড দেখার জন্য অনেক ভালো কাজ করে। তেমনি এর কিছু উপকারিতা রয়েছে চলুন জেনে নেই।

শিশুদের ত্বককে নরম করেঃ জনসন বেবি ক্রিমটি শিশুদের ত্বকে ব্যবহার করার ফলে শিশুদের ত্বক অনেকটাই নরম এবং কোমল করে। তার পাশাপাশি এটি শিশুদের ত্বকের রুক্ষতা দূর করার ক্ষেত্রে সহযোগিতা করে।

শিশুদের ত্বককে হাইড্রেটেড রাখেঃ জনসন বেবি ক্রিমটি শিশুদের ত্বকে ব্যাবহার করার ফলে এটি শিশুদের ত্বককে হাইড্রেটেড রাখার জন্য সাহায্য করে।

বাচ্চাদের ত্বককে সুরক্ষা করেঃ জনসন বেবি ক্রিম বাচ্চাদের ত্বকে ব্যাবহার করার ফলে তাদের ত্বককে সুরক্ষা দেয়। এবং সকল প্রকার ক্ষতিকারক উপাদান থেকে সুরক্ষা করে।

বাচ্চাদের ত্বককে মসৃণ করেঃ জনসন বেবি ক্রিম যদি বাচ্চাদের ত্বকে নিয়মিত ব্যাবহার করা হয় তাহলে সেটি বাচ্চাদের ত্বকের সকল মসৃণতা দূর করতে এবং ত্বকের দাগ দূর করতে সহায়তা করে। তার পাশাপাশি এটি উজ্জ্বল এবং প্রাণবন্ত করে তুলতে সহায়তা করে।

বাচ্চাদের ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখেঃ জনসন বেবি ক্রিম বাচ্চাদের ত্বকে ব্যাবহার করার ফলে ত্বকের আর্দ্রতা বজায় রাখতে সহযোগিতা করে এবং ত্বকের শুষ্কতা দূর করতে সহায়তা করে। এছাড়াও এটি ত্বকের দীর্ঘ একটি সময় ধরে নরম এবং কোমল রাখার জন্য সাহায্য করে।

এই জনসন ক্রিম ব্যবহার করার জন্য আপনাকে অবশ্যই কিছু নির্দেশনা অনুসরণ করে চলতে হবে। এটি বাচ্চাদের শরীরে ব্যবহার করার জন্য প্রথমে আপনার হাতকে ভালোভাবে পরিষ্কার করে নিতে হবে। তারপর আপনার হাতের তালুতে কিছুটা পরিমাণ এই জনসনের ক্রিম নিন। এরপর আপনার হাতের তালু ব্যবহার করার মাধ্যমে বাচ্চার সম্পূর্ণ সরে যায় লাগিয়ে দিন।

তারপর সম্পূর্ণ অংশ বাচ্চার গায়ে মেসেজ করুন আলতোভাবে। এই ক্রিমটি আপনি বাচ্চা শরীরে দিনের যেকোনো সময়টাতেই ব্যবহার করতে পারেন। এই ক্রিমটি বাচ্চাদের পাশাপাশি যেকোন বয়সের মানুষজন ব্যবহার করতে পারবেন। তবে এটি শিশুদের ত্বকের ক্ষেত্রে অনেক নিরাপদ। যদি আপনার ত্বকের কোন ধরনের সমস্যা থাকে তাহলে আপনি এই জনসন ক্রিম একজন ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে তারপর ব্যবহার করতে পারেন।

গরমে বাচ্চাদের ক্রিম সম্পর্কে বহুল জিজ্ঞাসিত প্রশ্ন-উত্তরঃ-

প্রশ্নঃ বেবি পাউডার কোনটি ভালো?
উত্তরঃ বেবি পাউডারের জন্য সবথেকে ভালো হলো হিমালয় হারবাল বেবি পাউডার।

প্রশ্নঃ বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ব্যবহার করা যায়?
উত্তরঃ বাচ্চাদের জন্য ডাবর বেবি ক্রিমটি ব্যবহার করা যায়। কারণ এটিতে PH মান ৫.৫ যেটা শিশু বাচ্চাদের ত্বকের ক্ষেত্রে অনেকটাই ভালো। এতি তৈরি করা হয়েছে অ্যালোভেরা, লিকোরিস এবং বাদাম দিয়ে। এতে কোন প্রকার ক্ষতিকারক কেমিক্যাল ব্যাবহার করা হয়নি।

প্রশ্নঃ বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো?
উত্তরঃ বাচ্চাদের জন্য অ্যাভিনো বেবি ডেইলি ময়েশ্চার বডি লোশন ক্রিমটি অনেক ভালো।

প্রশ্নঃ শিশুর ত্বকের জন্য তেল না লোশন ভালো?
উত্তরঃ শিশুদের ত্বক ভালো রাখার জন্য তেল এবং তার সাথে লোশন উভয়ই ব্যাবহার একটি মৌলিক উদ্দেশ্য।

প্রশ্নঃ বাচ্চাদের ত্বক ফর্সা করার জন্য কোন ক্রিম ভালো?
উত্তরঃ শিশু বাচ্চাদের ত্বকের সকল প্রকার অবাঞ্ছিত ট্যানিং কমানোর জন্য একটি মৃদু শিশুর যত্নে পণ্য হিসাবে Mamaearth CoCo Soft Body Lotion সুপারিশ করেন ডাক্তারগণ।

শেষ কথা। গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো

এই গরমে বাচ্চাদের জন্য কোন ক্রিম ভালো হবে এই বিষয়ে আপদেরকে এই আর্টিকেলের মধ্যমে একটি স্বচ্ছ ধারণা দেওয়ার চেষ্টা করেছি। আশা করছি আপনি সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ার মাধ্যমে অনেকটাই উপকৃত হয়েছেন। এমন আরো তথ্যবহুল আর্টিকেল প্রতিদিন ফ্রিতে পড়ার জন্য আমাদের ওয়েবসাইট ভিজিট করুন। এতক্ষণ সাথে থাকার জন্য ধন্যবাদ আপনাকে।

এই পোস্টটি পরিচিতদের সাথে শেয়ার করুন

পূর্বের পোস্ট দেখুন পরবর্তী পোস্ট দেখুন
এই পোস্টে এখনো কেউ মন্তব্য করে নি
মন্তব্য করতে এখানে ক্লিক করুন

পেপারস্পট২৪ এর নীতিমালা মেনে কমেন্ট করুন। প্রতিটি কমেন্ট রিভিউ করা হয়।

comment url